শুক্রবার, ২৬শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং ১১ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

প্রাণভিক্ষাকে সাধুবাদ জানিয়েছে গণজাগরণ মঞ্চ

news-image

একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধের দায় স্বীকার করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী এবং জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ প্রাণভিক্ষা চেয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে আবেদন করায় সাধুবাদ জানিয়েছে গণজাগরণ মঞ্চ।

শনিবার বিকেলে রাজধানীর শাহবাগের জাতীয় জাদুঘরের সামনে এক প্রতিক্রিয়ায় এ সাধুবাদ জানান মঞ্চের মুখপাত্র ডা. ইমরান এইচ সরকার।
ইমরান বলেন, সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ও আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষার যে আবেদন করার জন্য আমরা তাদের সাধুবাদ জানাই। কেননা, রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা প্রার্থনার আগে তাদের সব অপরাধ স্বীকার করতে হয়েছে।saka-muja


তিনি বলেন, যুদ্ধাপরাধীরা যে আদর্শের কথা বলেছিল, আদর্শিক কারণে তারা মানুষ হত্যা করেছিল, কিন্তু আসলে আদর্শিক কোনো বিষয় এখানে ছিল না। বরং সেসময় নব্য একটা ধনিক শ্রেণি অর্থাৎ মুসলিম লীগ-জামায়াত দেশকে শোষণ করবার জন্য স্বাধীনতার বিরোধিতা করেছিল। এ ক্ষমা চাওয়ার মধ্যদিয়ে সে আদর্শ তো ভুলণ্ঠিত হলোই সেই সঙ্গে তাদের মধ্যে যে কোনো আদর্শ নেই, শুধুমাত্র অর্থনৈতিক কারণেই স্বাধীনতার বিরোধিতা করেছিল সেটা প্রমাণ হয়েছে। তিনি আরো বলেন, রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা চেয়ে যুদ্ধাপরাধীদের ক্ষমা পাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। যুদ্ধাপরাধের বিচারের মামলায় অপরাধীরা একটি পক্ষ আর অপর পক্ষটি হচ্ছে বাংলাদেশের জনগণ। সুতরাং বাংলাদেশের জনগণের আকাঙ্ক্ষার বিরুদ্ধে কিংবা বিপরীতে গিয়ে রাষ্ট্রপতির ক্ষমা করার কোনো সুযোগ নেই।