g মরুভূমিতে মানব শিশুকে দুধ খাওয়াল গর্ভবতী কুকুর! | AmaderBrahmanbaria.Com – আমাদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া

শনিবার, ১৯শে আগস্ট, ২০১৭ ইং ৪ঠা ভাদ্র, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

মরুভূমিতে মানব শিশুকে দুধ খাওয়াল গর্ভবতী কুকুর!

AmaderBrahmanbaria.COM
সেপ্টেম্বর ৮, ২০১৫
news-image

---

 

ধূসর, রুক্ষ অ্যারিকার মরুভূমি বন্দর এলাকায় ফেলে রেখে গিয়েছিল মাতাল মা। বয়স দু’বছর। বাঁচার কোনও সম্ভবনাই ছিল না তার। খাবার, জল না পেয়ে মরেই যেত সে। তবুও বেঁচে ফিরল দু’বছরের একরত্তি ছেলেটি। কিন্তু কোনও মানুষের কারণে নয়। ওই ভয়ঙ্কর পরিবেশে কোনও মানুষ তার খিদে মেটাতে এগিয়ে আসেনি! তাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসে একটি গর্ভবতী কুকুর। নিজের বুকের দুধ খাইয়ে শিশুটিকে বাঁচায় ওই সারমেয়। পালন করে প্রকৃত মায়ের দায়িত্ব! ঘটনাটি ঘটেছে চিলির রাজধানী স্যান্টিয়াগো থেকে এক হাজার মাইল দূরের অ্যারিকায়।
জানা গেছে, শিশুটির পরিবার ওই এলাকারই বাসিন্দা। কিন্তু তার মা দিনরাত নেশায় বেহুঁশ হয়ে থাকেন। নেশার ঘোরেই এক দিন ছেলেকে বাড়িতে ফেলে বেরিয়ে যান তিনি। খিদের জ্বালায় শিশুটি বাড়ি থেকে বেরিয়ে পড়ে। কাঁদতে কাঁদতে ক্লান্ত, অবসন্ন হয়ে পড়ে সে। পাশ দিয়ে চলে যাওয়া মানুষ তাকে সাহায্য করেননি। তখনই এগিয়ে আসে কুকুরটি। নিজের বুকের দুধ খাইয়ে শিশুটিকে বাঁচায় সে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, একটি ‘মেকানিকস্ ওয়ার্কশপ’এর মধ্যে শিশুটিকে দুধ খাওয়াচ্ছিল তারই প্রতিবেশীর কুকুর। কুকুরটির নাম রেইনা। স্থানীয় ভাষায় যার অর্থ রানি। পথচলতি মানুষ এই ঘটনা দেখে পুলিশে খবর দেন। এর পর শিশুটিকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে চিলি পুলিশ। অপুষ্টিতে ভোগা শিশুটির বেশ কিছু চর্মরোগও রয়েছে। তাই কিছু দিন তাকে চিকিৎসকদের বিশেষ তত্ত্বাবধানে রাখা হবে।
এর পর হাসপাতালেই হাজির হন শিশুটির মত্ত মা। কিন্তু শিশুটির কোনও শারীরিক আঘাত না থাকায় তাঁকে গ্রেপ্তার করেনি পুলিশ। শিশুটির বাবারও কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি। চিলির ‘ন্যাশনাল সার্ভিস ফর মাইনরস্’ কর্তৃপক্ষ শিশুটির মায়ের বিরুদ্ধে তার প্রতি অবহেলার অভিযোগ দায়ের করেছেন। যাঁরা পুলিশকে খবর দিয়েছিলেন তাঁদেরও ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা। আগামী ২২ সেপ্টেম্বর আদালতে শুনানির মাধ্যমে শিশুটিকে মায়ের হাতে তুলে দেওয়া হবে কিনা সেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

 

এ জাতীয় আরও খবর