শুক্রবার, ১৯শে জানুয়ারি, ২০১৮ ইং ৬ই মাঘ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

ধ্বংস করে দেয়া হল সাদ্দাম হোসেনের মাজার

AmaderBrahmanbaria.COM
মার্চ ১৬, ২০১৫

saddam majarইরাকের ক্ষমতাচ্যুত প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের সমাধিসৌধটি প্রায় গুঁড়িয়ে দেয়া হয়েছে। তিকরিতে ইসলামিক স্টেটের সাথে সরকারি বাহিনী ও শিয়া মিলিশিয়াদের মধ্যে তীব্র লড়াইয়ে সমাধি সৌধটি ধ্বংস হয়েছে।

তিকরিতের আল-আওজা গ্রামে সাদ্দামের বিলাসবহুল সমাধিসৌধটি অবস্থিত ছিল। যদিও তার মৃতদেহ আগেই সরিয়ে নেয়া হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন।

স্থানীয় সুন্নিরা জানিয়েছেন গত বছরই সাদ্দাম হোসেনের মৃতদেহ অন্য একটি স্থানে সরিয়ে নেয়া হয় যার নাম প্রকাশ করা হয়নি। বার্তা সংস্থা এসোসিয়েটেড প্রেসের একটি ফুটেজে দেখা যায় স্মৃতিসৌধটি ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছে এবং সেখানে কিছু পিলার দাড়িয়ে আছে।

ইরাকী বাহিনী ও শিয়া মিলিশিয়ারা ইসলামিক স্টেট বা আই এস জঙ্গিদের বিরুদ্ধে সেখানে লড়াই করছে। ফুটেজে দেখা যায় শহরের দক্ষিণে স্মৃতিসৌধটি এখন একটি কংক্রিটের ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছে। শিয়া মিলিশিয়াদের একজন কর্মকর্তা জানান সাদ্দাম হোসেনের কবর থাকার কারণে আইএস জঙ্গিরা এলাকাটির অধিকাংশই ধ্বংস করেছে।

আইএস বলেছিলো গত অগাস্টেই কবরটি ধ্বংস করে দেয়া হয়েছে কিন্তু স্থানীয় কর্মকর্তারা তা অস্বীকার করে লুটপাটের কথা বলেছিলো।

সাদ্দাম হোসেন ২০০৩ সালে মার্কিন বাহিনীর হাতে ধরা পড়েছিলেন। পরে ইরাকী আদালতের রায় অনুসারে ২০০৬ সালে তার ফাঁসি কার্যকর করা হয়। ২০০৭ সাল থেকে তার মরদেহ তিকরিতের ওই স্মৃতিসৌধের কবরে রাখা হয়।

সাদ্দাম হোসেনের কবরকে কেন্দ্র করে মাজার বা স্মৃতিসৌধটি করা হয়েছিলো। তিকরিত শহরটি গত জুন থেকেই আইএস’র নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। এখন ইরাকী বাহিনী শহরটি পুনরুদ্ধারকে একটি বড় সাফল্য হিসেবেই দেখছে।